Samokal Potrika

সন্ধে নামার পর উন্মুক্ত শ্বাস নেয় তাঞ্জিরা। দিনের আলোয় অসহ্য অনুভূতিরা গ্রাস করে তাকে। আড়চোখ আর বাঁকাকথা শুনতে শুনতে কর্ণকুঠিরে জমা ক্লান্তিকর ক্লেদ। এই জীবন সে চেয়েছিল কি? সময়ের নীল বিষ মুছে দিয়েছে তাঞ্জিরার অতীত।

 

আর কবে মাথা তুলে দাঁড়াবে তুমি?

তোমার রক্তে রঞ্জিত তোমার জন্মভূমি।

ওরা আর এরা মিলে ভরে শ্মশান ও কবর,

সয়ে যেতে যেতে জঙ নিয়ে মেরুদণ্ড নিথর।

প্রতিবাদী শব্দের আগুনে মায়াময় অন্তর্জাল

রাজপথ তবু শূন্য, বিদ্রোহ ঘুমিয়েছে কতকাল

পথে এবার নামার সময় বন্ধু ভেঙে কালঘুম