Samokal Potrika

গর্তের ভিতর জীবন বড় সুখের হয়। যদিও তা এক ধরণের পরাধীনতা হয়ত বা।তবু চারপাশের অন্যায় অবিচার ভুল মিথ্যে --এসব মেনে নিয়ে দুচোখ বুজে থাকলে জীবন আপাত সুখের হয় বৈকি।

     তবে এই পরাধীনতার বিরুদ্ধে স্বাধীনতা প্রায়শই মাথা চাড়া দিয়ে উঠতে চায়।এই যেমন সেবার এক পকেট মারকে ধরে রাস্তায় সবাই হেব্বি  কেলাচ্ছিল।আমি প্রতিবাদ করে তাকে পুলিশের হাতে তুলে দেওয়ার কথা বলেছিলাম।কারণ ওতে অপরাধের সুরাহা হয় না।সকলে রে -রে করে তেড়ে আসে।ঘাড় ধাক্কা ধাক্কিতে আমিও মাটিতে চিতপটাং।তার থেকে বরং চুপ চাপ থাকাই ভাল বেশ।

 সেই মেয়েটির সাথে দীর্ঘ প্রেম জীবনের ইতি ঘটল সেও তো একই কারণে।প্রেম প্রেম খেলায় ভালই কেটে যাচ্ছিল দিনগুলি।হাতে হাত,ঠোঁটে ঠোঁট।তবু হঠাৎ কি এক সন্দেহ গ্রাস করল।সব তছনছ হয়ে  গেল।অথচ মাইরি বলছি দুজনে মিথ্যে বলে মিথ্যে নিয়ে দিব্যি কাটিয়ে দেওয়া যেত বাকি জীবন ।আমিই কি ধোঁয়া তুলসীপাতা।অর্থাৎ কিনা আমি যা তুমিও তা --এই চিন্তা করলে বেশ মানিয়ে গুছিয়ে চলা যায়।

 তবু এই আপোষহীন স্বাধীনতা গুলো ভর করে মাঝে মধ্যে।তখন মিথ্যা ,ছলনা একদম সহ্য হয় না।আর তখনই ঘটে যায় নানান বিপত্তি।সত্যিই স্বাধীনতা ভীষণ কুৎসিত।তার থেকে পরাধীনতা বেশ সুখের!!

 তাই গর্তের ভেতর পরম নিশ্চিন্ত লাগে আজকাল।কেউ চোখ রাঙালেও মাথা নীচু করে সরে যাই।পাড়ায় কেউ আক্রান্ত!দরজা জানালা বন্ধ করে জোরে টিভি চালিয়ে দিই।রাস্তায় কেউ পড়ে কাতরাচ্ছে!পাশ কাটিয়ে যাই দ্রুত।

কে জানে কোথায় কোন ভোজালি অপেক্ষা করছে হয়ত আমারই জন্যে!!