Samokal Potrika

রাংতা মোড়ানো অনুভবগুলো আজও তন্দ্রা তন্দ্রা খেলায় । 

আর ভিতরে পড়ে থাকা আমির অবয়বে সেই আকরিক,

শূন্যদৃষ্টির সংক্ষিপ্ত ছাউনি টানি। 

এই  জীবন,  মেনে নিয়ে যে কথায় মরচে ধরে গেছে ,তাকে 

ধূলোর সাথে মিশে যেতে দিয়েছি।

মরচে  ধরার অধিকার আছে প্রতিটি কথার। 

 

ওই সব ধারালো আলেখ্য গুলোকে এখন   একটি জানলা ভাবি,

অস্থির শ্বাসে আমার পিঠে কেমন গজিয়ে উঠছিল মৃত্যু ডানা,

রক্তে রক্তে শক্ত দেওয়াল,পাঠ্যপুস্তক রঙে সাজানো ছিল ছাত  

রেবতী নক্ষত্র একথা বুঝেছিল কিভাবে জানি না 

বলেছিল ওই অনুর্বর বন্ধন, তোর বদ্ধ ঘরের জানলা ...

বলেছিল ভেঙে দে ...ওপাশে  তোর এককাঠা জায়গা কেনা...

 নীল নকসায় আঁকা দেখলাম

তোমার বাহু,তোমার  ঠোঁট,দুচোখে তোমার মগধ-বেলা।